Main Menu

বাংলাদেশকে ২০৪১ সালের আগেই উন্নত রাষ্ট্র করতে সরকার কাজ করছে: বাণিজ্যমন্ত্রী

বাণিজ্য মন্ত্রী টিপু মুনশি বলেছেন, বাংলাদেশকে ২০৪১ সালের আগেই উন্নত রাষ্ট্র করতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশে সরকার কাজ করছে।

মঙ্গলবার সকালে সিলেটে ‘ব্যবসা বাণিজ্যে সুষ্ঠু প্রতিযোগিতা নিশ্চিতকরণে বাংলাদেশ প্রতিযোগিতা কমিশনের ভূমিকা’ শীর্ষক বিভাগীয় সেমিনারের উদ্বোধন করে তিনি একথা জানান।

বাংলাদেশ প্রতিযোগিতা কমিশনের উদ্যোগে ও সিলেট বিভাগীয় প্রশাসনের সহযোগিতায় জেলা প্রশাসনের সম্মেলন কক্ষে এই সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়।

বাণিজ্য মন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশকে উন্নত রাষ্ট্রের আসনে নিয়ে যেতে অনেক সংস্কারমূলক উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে।

তিনি বলেন, ভোক্তারা যাতে না ঠকেন, বাজারে দ্রব্যমূল্য যাতে সহনশীল থাকে এবং ব্যবসা-বাণিজ্যের যাতে প্রসার ঘটে সেজন্যেই প্রতিযোগিতা কমিশন কাজ করছে।

টিপু মুনশি উল্লেখ করেন, করোনা বিপর্যয়ের মধ্যেও বাংলাদেশ সকল ক্ষেত্রেই ভাল অবস্থান ধরে রাখতে পেরেছে।

সেমিনারে বিশেষ অতিথি ছিলেন, বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সচিব ড. মো জাফর উদ্দিন, সিলেট বিভাগের বিভাগীয় কমিশনার মো. মশিউর রহমান এনডিসি, সিলেট রেঞ্জ পুলিশের উপ মহাপরিদর্শক মফিজ উদ্দিন আহমদ ও সিলেট মহানগর পুলিশ কমিশনার নিশারুল আরিফ। সভাপতিত্ব করেন, বাংলাদেশ প্রতিযোগিতা কাউন্সিলের চেয়ারপার্সন মফিজুল ইসলাম। স্বাগত বক্তব্য রাখেন, বাংলাদেশ প্রতিযোগিতা কমিশনের সদস্য মো. আব্দুর রউফ। মূল বিষয় পাওয়ার পয়েন্টে উপস্থাপন করেন, সদস্য জি. এম সালেহ উদ্দিন। ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন, সদস্য নাসরিন বেগম। আলোচনায় অংশ নেন, সিলেটের জেলা প্রশাসক এম. কাজী এমদাদুল ইসলাম, মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি বীরমুক্তিযোদ্ধা মাসুক উদ্দিন আহমদ, সিলেট চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রির সভাপতি এ. টি. এম শোয়েব, কনজুমার্স এসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ-ক্যাব সিলেটের সভাপতি জামিল চৌধুরী, কলামিস্ট আফতাব চৌধুরী, সিলেট জেলা প্রেসক্লাবের সভাপতি আল আজাদ, সিলেট অনলাইন প্রেসক্লাবের সভাপতি মুহিত চৌধুরী, সিলেট ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতি জিয়াউল হক, সিলেট উইমেন চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রির সভাপতি স্বর্ণলতা রায়, হবিগঞ্জ চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রির প্রতিনিধি দেওয়ান মিয়া প্রমুখ।

সভাপতির বক্তব্যে চেয়ারপার্সন মফিজুল ইসলাম জানান, বাংলাদেশ প্রতিযোগিতা কাউন্সিলের মাধ্যমে ভোক্তা, উৎপাদক, সরবরাহকারী ও আড়ৎদার সবাই উপকৃত হবেন। তবে সেবা নিতে সমাজকে প্রস্তুত হতে হবে। অভিযোগ দায়েরের সুবিধার্থে খুব শিগগির একটি হটলাইন চালু করা হবে।






Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *